বাংলাদেশীদের জন্য অন অ্যারাইভাল ভিসা বন্ধ শ্রীলঙ্কায়

  • Mohammad Emran 1649 17/09/2016

হঠাৎ করেই বিনা নোটিশে অন অ্যারাইভাল ভিসা সুবিধা বন্ধ করে দিয়েছে শ্রীলঙ্কা।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন , “তারা ওই সুবিধা বন্ধ করার আগে আমাদের অফিসিয়ালি কিছুই জানায়নি। শনিবার আমাদের যাত্রীরা কলম্বো বিমানবন্দরে নেমে আটকা পড়ার পর বিষয়টি আমরা জানতে পারি।”  

এ বিষয়ে ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ইমিগ্রেশন পুলিশের ওসি আবদুল্লাহ আল মামুনও ‘অন অ্যারাইভাল’ ভিসা বন্ধের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।  বুধবার তিনি বলেন, বাংলাদেশও শ্রীলঙ্কার যাত্রীদের ওই সুবিধা দেওয়া বন্ধ রেখেছে। “শ্রীলঙ্কাই শুরু করেছে। এরপর আমাদের কর্তৃপক্ষ একই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।” তবে ঠিক কী কারণে এই টানাপড়েন- সে বিষয়ে কোনো তথ্য দিতে পারেননি তিনি।  

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা জানান, কলম্বো ওই পদক্ষেপ নেওয়ার পর ঢাকায় তাদের হাই কমিশনার ইয়াসোজা গুনাসাকেরাকে ঈদের ছুটির মধ্যে গত রোববার তলব করা হয়েছিল। কিন্তু তিনিও কোনো ব্যাখ্যা দিতে পারেননি। ঈদের ছুটির মধ্যে ঢাকায় শ্রীলঙ্কা হাই কমিশন বন্ধ থাকায় এ বিষয়ে তাদের কোনো আনুষ্ঠানিক বক্তব্য পাওয়া যায়নি।  

তবে কলম্বো গেজেটের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রোববার প্রায় এক ঘণ্টার বৈঠকে অতিরিক্ত পররাষ্ট্র সচিব (বাইলেটারাল অ্যান্ড কনস্যুলার) কামরুল আহসান কলম্বোর আকস্মিক সিদ্ধান্তের বিষয়ে ঢাকার হতাশার কথা প্রকাশ করে ব্যাখ্যা জানতে চান শ্রীলঙ্কার হাই কমিশনারের কাছে।  “পরে গুনাসাকেরা সাংবাদিকদের বলেন, তিনি নিজেও বিষয়টি সম্পর্কে অবগত ছিলেন না। কলম্বোতে পররাষ্ট্র দপ্তরের সঙ্গে কথা বলার পর তিনি এ বিষয়ে বলতে পারবেন,” বলা হয়েছে প্রতিবেদনে।

এদিকে হিরু নিউজ নামে শ্রীলঙ্কার আরেকটি ইংরেজি নিউজ পোর্টাল তাদের প্রতিবেদনে লিখেছে, ‘আইএস জঙ্গিদের প্রবেশ ঠেকাতে’ কলম্বো কয়েকটি দেশের নাগরিকদের অন অ্যারাইভাল ভিসা দেওয়ার ক্ষেত্রে কড়াকড়ি আরোপ করেছে, যার মধ্যে বাংলাদেশও রয়েছে।

দেশটির ইমিগ্রেশন দপ্তরের ভিসা ও সীমান্ত ব্যবস্থাপনা দপ্তরের নিয়ন্ত্রক মাদুমা বান্দারাকে উদ্ধৃত করে হিরু নিউজ লিখেছে, মাদক চোরাচালান ঠেকানোও এই পদক্ষেপের একটি উদ্দেশ্য।

অপরদিকে, শ্রীলঙ্কার এমন সিদ্ধান্তের পরও দেশটির বিমান সংস্থা মিহিন লঙ্কা ঢাকা থেকে যাত্রী নিয়ে কলম্বো গিয়েছে। সেখানে বিমানবন্দরে যাওয়ার পর আর ঢুকতে দেওয়া হয়নি বাংলাদেশিদের। ফলে বিমানবন্দরেই রাত কাটাতে হয়েছে বাংলাদেশিদের। এখন ঢাকায় থাকা শ্রীলঙ্কার বড় সংখ্যক নাগরিকও বিমানবন্দরে রাত কাটানোর মতো ভোগান্তিতে পড়তে বাধ্য হচ্ছেন। তবে ঢাকার কর্মকর্তারা বলছেন, শ্রীলঙ্কা যত দ্রুত আনুষ্ঠানিক আলোচনায় আসবে তত দ্রুতই সমস্যার সমাধান হবে।

 



You might like

Quick Search