আমেরিকায় বিনামূল্যে জমির মালিক হওয়ার সুযোগ 29/05/2016



দীর্ঘদিনের স্বপ্ন এক চিলতে জমি কিনে স্বপ্নের বাড়ি তৈরি করবেন! স্বপ্ন থাকলেও অর্থের অভাবে তা অধরাই থেকে যাচ্ছে। এর প্রধান কারণ শহরে জমির দাম আকাশ-ছোঁয়া। সাধ এবং সাধ্যের মধ্যে আপোস করাটাই নিয়তি।

কিন্তু আপনাকে যদি বলা হয়, একেবারে বিনামূল্যে বিদেশের মাটিতেই পেয়ে যেতে পারেন আপনার স্বপ্নের বাড়ি, তাহলে? অবিশ্বাস্য মনে হলেও সত্য। বিশ্বে সত্যিই এমন কয়েকটি জায়গা রয়েছে, যেখানে অল্প কিছু শর্তের বিনিময়ে বাড়ি তৈরি করার জন্যে বিনামূল্যে জমি দেওয়া হচ্ছে।

মার্নে, আইওয়া : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এই শহরে বাসিন্দার সংখ্যা মোট ১৪৯ জন। মার্নের চারদিকে ছড়িয়ে আছে অনেক ফাঁকা জমি। ফলে শহরের জনসংখ্যা বাড়ানোর জন্যে বিনামূল্যে জমি দিচ্ছে মার্নে হাউজিং অ্যান্ড ডেভলপমেন্ট কর্পোরেশন। তবে শর্ত একটাই; ১২০০ বর্গফুট বা তার চেয়ে বড় আকারের বাড়ি নির্মাণ করতে হবে।

মারকেট, কানসাস : আমিরেকার কানসাসের একটি ছোট্ট শহর মারকেট। ২০১৩ সালের আদমশুমারি অনুযায়ী, এই শহরে আছে মোট ৬৪৩ বাসিন্দা। জনসংখ্যা বৃদ্ধি ও বসতি বাড়ানোর জন্য ব্যক্তিদের বিনামূল্যে জমি দেওয়া হচ্ছে। তবে একটি নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই বাড়ি বানানো শেষ করতে হবে।

লিঙ্কন, কানসাস : লিঙ্কন শহরের জনসংখ্যা ৩ হাজার ২৪১ জন। তবে এই শহরের দীর্ঘদিনের স্বপ্ন একটি উন্নতমানের সাব-ডিভিশন তৈরি করা। প্রকৃতির নিবিড় সান্নিধ্যে এই শহরে থাকার ইচ্ছে হলে বিনামূল্যে পেতে পারেন জমি।

মাস্কেগ, মিশিগান : যুক্তরাষ্ট্রের এই শহরের চাহিদা একটু ভিন্ন। জনসংখ্যা বাড়ানোর জন্য নয়, বরং যারা এখানে ব্যবসা শুরু করতে চান তাদেরকেই দেয়া হচ্ছে বিনামূল্যে জমি। তবে বিনা শর্তে জমি পাবেন না ভবিষ্যতের ব্যবসায়ীরা। কতটুকু জমি নিচ্ছেন, তার উপর নির্ভর করবে কতজনকে কাজ দিতে হবে। কর্মীর সংখ্যার উপর নানা রকম কর-ছাড় পাবেন।

নিউ রিচল্যান্ড, মিনেসোটা : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের একটি অঙ্গরাজ্য। এর একদিকে রয়েছে চার্চের সারি, অন্যদিকে হ্রদের ধারে সূর্যাস্তের মনোরম শোভা। কিন্তু প্রকৃতির এই ঐশ্বর্য উপভোগ করার মতো মানুষের বড়ই অভাব শহরটিতে। জনসংখ্যা মাত্র ১২০০। ফলে খালি পড়ে রয়েছে বহু জমি। এই শহরের প্রশাসন তাই বিনামূল্যে জমি দিতে প্রস্তুত।তবে শর্ত জুড়ে দেওয়া হচ্ছে, জমি পাওয়ার এক বছরের মধ্যেই বাড়ির নির্মাণ কাজ কাজ শেষ করতে হবে।

বেয়াত্রিস, নেব্রাস্কা: যুক্তরাষ্ট্রের এই শহরের জনসংখ্যা বা ব্যবসা বাড়ানোর জন্য নয় বরং খালি পড়ে থাকা জমি বিতরণ করাই এই শহরের লক্ষ্য। এখানেও বিনামূল্যে জমি পাওয়া যাবে। তবে শর্ত একটাই অন্তত ৫ বছর থাকতে হবে।

সূত্র : স্কুপহুপ।

You might like