আড়াই একর জমিসহ রাশিয়ায় নাগরিকত্বের সুযোগ বিনামূল্যে 15/05/2016



রাশিয়া বিশ্বের বৃহত্তম দেশ। রাশিয়ার মত এত বেশি খনিজ সম্পদ বিশ্বের অন্য কোন দেশের নেই। ২০০৩ সালে দেশটির জনসংখ্যা ছিল ১৪ কোটি ৪৫ লক্ষের কিছু বেশি। রাশিয়ার রাজধানী মস্কো দেশটির প্রশাসনিক, বাণিজ্যিক, শিল্প ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্র। রাশিয়া বর্তমানে একটি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র। দেশের বেশিরভাগ জনগণ রুশ ভাষায় কথা বলে। আরও প্রায় ৮০টিরও বেশি ভাষা প্রচলিত। পূর্বে রাশিয়ায় রাজতন্ত্র প্রচলিত ছিল। খ্রিস্টধর্ম রাশিয়ার প্রধান ধর্ম। রাশিয়া দেশটি হাড়কাঁপানি ঠান্ডা বলে এখানে থাকাটা বরং খুবই কষ্টকর এবং প্রতিকূল। রাশিয়ার অর্থনীতি বিশ্বে দশম বৃহত্তম।

সম্প্রতি রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, যেসব লোক রাশিয়ার সবচেয়ে পূর্বাঞ্চলে বসবাসে রাজি হবে তাদেরকে বিনামূল্যে ২ দশমিক ৫ একর জমি দেয়া হবে। দেশের অর্থনীতিকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে পুতিন দেশি-বিদেশি সবার জন্য উন্মুক্ত এ প্রস্তাব দিয়েছেন।

রুশ প্রেসিডেন্টের সেই অফার মনে ধরেছে ব্রিটিশদের। ইংল্যান্ডের ট্যাবলয়েড পত্রিকা ‘দ্যা এক্সপ্রেস’ এক জরিপ চালিয়েছে। এতে অংশ নিয়েছে ২২ হাজার মানুষ। এর মধ্যে শতকরা ৭৮ ভাগ মানুষ বলেছে, বিনা মূল্যে জমি দেয়া হলে তারা রাশিয়ায় চলে যেতে প্রস্তুত রয়েছে।

জরিপে অংশ নেয়া শতকরা ৩৫ ভাগের কম ব্রিটিশ নাগরিক ডেভিড ক্যামেরনের প্রতি সমর্থন ব্যক্ত করেছেন।

পুতিন দেশের পূর্বাঞ্চলে বসবাসের জন্য যে প্রস্তাব দিয়েছেন তা দেশি-বিদেশি সবার জন্য উন্মুক্ত। তবে বিদেশি নাগরিকদেরকে নিজ দেশের নাগরিকত্ব ছেড়ে শুধুমাত্র রাশিয়ার নাগরিকত্ব গ্রহণ করতে হবে। পরে তারা সেখানে ব্যবসা, কৃষিকাজ কিংবা পর্যটনের কাজ শুরু করতে পারবে।

জরিপে অংশ নেয়া এক ব্যক্তি বলেন,  ‘ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন কিংবা করবিনের লেবার দলের অধীনে থাকার চেয়ে রাশিয়ায় আমি অনেক বেশি ভালো থাকব।’

আরেক ব্যক্তি এমন প্রস্তাব দেয়ার জন্য প্রেসিডেন্ট পুতিনের প্রশংসা করেছেন এবং রুশ প্রেসিডেন্টের প্রতি তাদের ভাললাগার কথা জানিয়েছেন।

সিমন সার্প নামের এক ব্রিটিশ নাগরিক দ্যা এক্সপ্রেসকে বলেন, এটা জানার পর এ নিয়ে স্ত্রী সাথে এরই মধ্যে আলাপ করেছি।

You might like